taisirul . mohamed-seddik-el-menchaoui
Nozol : مكية  ,   Other names :
  1. Part
    29
  1. Hizb
    58
  1. Nozol order
    31
  1. Characters count
    676
  1. Words count
    164
  1. Ayaat count
    40
  1. Pages count
    2
  1. From page
    577
  1. To page
    577

لَا أُقْسِمُ بِيَوْمِ الْقِيَامَةِ

আমি কসম করছি ক্বিয়ামতের দিনের,

Words count : 4 Characters count : 17 لا أقسم بيوم القيامة

وَلَا أُقْسِمُ بِالنَّفْسِ اللَّوَّامَةِ

আমি আরো কসম করছি সেই মনের যে (অন্যায় কাজ ক’রে বসলে) নিজেকে ধিক্কার দেয় (যে তোমাদেরকে অবশ্যই আবার জীবিত করে উঠানো হবে)।

Words count : 4 Characters count : 20 ولا أقسم بالنفس اللوامة

أَيَحْسَبُ الْإِنسَانُ أَلَّن نَّجْمَعَ عِظَامَهُ

মানুষ কি মনে করে যে, আমি তার হাড়গুলোকে একত্রিত করতে পারব না।

Words count : 5 Characters count : 24 أيحسب الإنسان ألن نجمع عظامه

بَلَىٰ قَادِرِينَ عَلَىٰ أَن نُّسَوِّيَ بَنَانَهُ

কেন নয়, আমি তার আঙ্গুলের ডগা পর্যন্ত সঠিকভাবে বানিয়ে দিতে সক্ষম

Words count : 6 Characters count : 23 بلى قادرين على أن نسوي بنانه

بَلْ يُرِيدُ الْإِنسَانُ لِيَفْجُرَ أَمَامَهُ

কিন্তু মানুষ তার আগামী দিনগুলোতেও পাপাচার করতে চায়।

Words count : 5 Characters count : 23 بل يريد الإنسان ليفجر أمامه

يَسْأَلُ أَيَّانَ يَوْمُ الْقِيَامَةِ

সে জিজ্ঞেস করে, ‘ক্বিয়ামত দিবস কবে?’

Words count : 4 Characters count : 18 يسأل أيان يوم القيامة

فَإِذَا بَرِقَ الْبَصَرُ

যখন চোখ ধাঁধিয়ে যাবে,

Words count : 3 Characters count : 12 فإذا برق البصر

وَخَسَفَ الْقَمَرُ

চাঁদ হয়ে যাবে আলোকহীন

Words count : 2 Characters count : 9 وخسف القمر

وَجُمِعَ الشَّمْسُ وَالْقَمَرُ

সুরুজ আর চাঁদকে একত্রে জুড়ে দেয়া হবে,

Words count : 3 Characters count : 15 وجمع الشمس والقمر

يَقُولُ الْإِنسَانُ يَوْمَئِذٍ أَيْنَ الْمَفَرُّ

সেদিন মানুষ বলবে- ‘আজ পালানোর জায়গা কোথায়?’

Words count : 5 Characters count : 24 يقول الإنسان يومئذ أين المفر

كَلَّا لَا وَزَرَ

মোটেই না, আশ্রয়ের কোন জায়গা নেই।

Words count : 3 Characters count : 8 كلا لا وزر

إِلَىٰ رَبِّكَ يَوْمَئِذٍ الْمُسْتَقَرُّ

সেদিন ঠাঁই হবে (একমাত্র) তোমার প্রতিপালকেরই নিকট।

Words count : 4 Characters count : 18 إلى ربك يومئذ المستقر

يُنَبَّأُ الْإِنسَانُ يَوْمَئِذٍ بِمَا قَدَّمَ وَأَخَّرَ

সেদিন মানুষকে জানিয়ে দেয়া হবে সে কী (‘আমাল) আগে পাঠিয়েছে আর কী পেছনে ছেড়ে এসেছে।

Words count : 6 Characters count : 26 ينبأ الإنسان يومئذ بما قدم وأخر

بَلِ الْإِنسَانُ عَلَىٰ نَفْسِهِ بَصِيرَةٌ

আসলে মানুষ নিজেই নিজের সম্পর্কে চাক্ষুসভাবে অবগত।

Words count : 5 Characters count : 21 بل الإنسان على نفسه بصيرة

وَلَوْ أَلْقَىٰ مَعَاذِيرَهُ

যদিও সে নানান অজুহাত পেশ করে।

Words count : 3 Characters count : 14 ولو ألقى معاذيره

لَا تُحَرِّكْ بِهِ لِسَانَكَ لِتَعْجَلَ بِهِ

(এ সূরাহ অবতীর্ণ হওয়ার সময় আল্লাহর রসূল তা মুখস্থ করার জন্য ব্যস্ত হয়ে পড়লে আল্লাহ অভয় দিয়ে বললেন) তুমি তাড়াতাড়ি ওয়াহী আয়ত্ত করার জন্য তোমার জিভ নাড়াবে না।

Words count : 6 Characters count : 20 لا تحرك به لسانك لتعجل به

إِنَّ عَلَيْنَا جَمْعَهُ وَقُرْآنَهُ

এর সংরক্ষণ ও পড়ানোর দায়িত্ব আমারই।

Words count : 4 Characters count : 17 إن علينا جمعه وقرآنه

فَإِذَا قَرَأْنَاهُ فَاتَّبِعْ قُرْآنَهُ

কাজেই আমি যখন তা পাঠ করি, তখন তুমি সে পাঠের অনুসরণ কর।

Words count : 4 Characters count : 20 فإذا قرأناه فاتبع قرآنه

ثُمَّ إِنَّ عَلَيْنَا بَيَانَهُ

অতঃপর তা (ওয়াহীয়ে খফী বা প্রচ্ছন্ন ওয়াহীর মাধ্যমে) বিশদভাবে ব্যাখ্যা করা আমারই দায়িত্ব।

Words count : 4 Characters count : 14 ثم إن علينا بيانه

كَلَّا بَلْ تُحِبُّونَ الْعَاجِلَةَ

(আবার পূর্বের প্রসঙ্গে ফিরে গিয়ে আল্লাহ বলছেন) না, প্রকৃতপক্ষে তোমরা ইহজীবনকেই ভালবাস,

Words count : 4 Characters count : 17 كلا بل تحبون العاجلة

وَتَذَرُونَ الْآخِرَةَ

আর আখিরাতকে উপেক্ষা কর।

Words count : 2 Characters count : 12 وتذرون الآخرة

وُجُوهٌ يَوْمَئِذٍ نَّاضِرَةٌ

কতক মুখ সেদিন উজ্জ্বল হবে।

Words count : 3 Characters count : 14 وجوه يومئذ ناضرة

إِلَىٰ رَبِّهَا نَاظِرَةٌ

তারা তাদের প্রতিপালকের দিকে তাকিয়ে থাকবে।

Words count : 3 Characters count : 12 إلى ربها ناظرة

وَوُجُوهٌ يَوْمَئِذٍ بَاسِرَةٌ

কতক মুখ সেদিন বিবর্ণ হবে।

Words count : 3 Characters count : 15 ووجوه يومئذ باسرة

تَظُنُّ أَن يُفْعَلَ بِهَا فَاقِرَةٌ

তারা ধারণা করবে যে, তাদের সঙ্গে কোমর-ভাঙ্গা আচরণ করা হবে।

Words count : 5 Characters count : 17 تظن أن يفعل بها فاقرة

كَلَّا إِذَا بَلَغَتِ التَّرَاقِيَ

(তোমরা যে ভাবছ ক্বিয়ামত হবে না সেটা) কক্ষনো নয়, প্রাণ যখন কণ্ঠে এসে পৌঁছবে,

Words count : 4 Characters count : 17 كلا إذا بلغت التراقي

وَقِيلَ مَنْ ۜ رَاقٍ

তখন বলা হবে, (তাকে বাঁচানোর জন্য) ঝাড়ফুঁক দেয়ার কেউ আছে কি?

Words count : 3 Characters count : 9 وقيل من راق

وَظَنَّ أَنَّهُ الْفِرَاقُ

সে (অর্থাৎ মুমূর্ষু ব্যক্তি) মনে করবে যে, (দুনিয়া হতে) বিদায়ের ক্ষণ এসে গেছে।

Words count : 3 Characters count : 12 وظن أنه الفراق

وَالْتَفَّتِ السَّاقُ بِالسَّاقِ

আর জড়িয়ে যাবে এক পায়ের নলা আরেক পায়ের নলার সাথে।

Words count : 3 Characters count : 17 والتفت الساق بالساق

إِلَىٰ رَبِّكَ يَوْمَئِذٍ الْمَسَاقُ

সেদিন (সব কিছুর) যাত্রা হবে তোমার প্রতিপালকের পানে।

Words count : 4 Characters count : 17 إلى ربك يومئذ المساق

فَلَا صَدَّقَ وَلَا صَلَّىٰ

কিন্তু না, সে বিশ্বাসও করেনি, নামাযও আদায় করেনি।

Words count : 4 Characters count : 12 فلا صدق ولا صلى

وَلَٰكِن كَذَّبَ وَتَوَلَّىٰ

বরং সে প্রত্যাখ্যান করেছিল আর মুখ ফিরিয়ে নিয়েছিল।

Words count : 3 Characters count : 12 ولكن كذب وتولى

ثُمَّ ذَهَبَ إِلَىٰ أَهْلِهِ يَتَمَطَّىٰ

অতঃপর সে অতি দম্ভভরে তার পরিবারবর্গের কাছে ফিরে গিয়েছিল।

Words count : 5 Characters count : 17 ثم ذهب إلى أهله يتمطى

أَوْلَىٰ لَكَ فَأَوْلَىٰ

দুর্ভোগ তোমার জন্য, দুর্ভোগ,

Words count : 3 Characters count : 11 أولى لك فأولى

ثُمَّ أَوْلَىٰ لَكَ فَأَوْلَىٰ

অতঃপর তোমার জন্য দুর্ভোগের উপর দুর্ভোগ।

Words count : 4 Characters count : 13 ثم أولى لك فأولى

أَيَحْسَبُ الْإِنسَانُ أَن يُتْرَكَ سُدًى

মানুষ কি মনে করে নিয়েছে যে তাকে এমনি ছেড়ে দেয়া হবে। (তাকে পুনর্জীবিত করাও হবে না, আর বিচারের জন্য হাজির করাও হবে না)?

Words count : 5 Characters count : 21 أيحسب الإنسان أن يترك سدى

أَلَمْ يَكُ نُطْفَةً مِّن مَّنِيٍّ يُمْنَىٰ

(তার মৃত্যুর পর আল্লাহ পুনরায় তাকে জীবিত করতে পারবেন না সে এটা কী ভাবে ধারণা করছে?) সে কি (মায়ের গর্ভে) নিক্ষিপ্ত শুক্রবিন্দু ছিল না?

Words count : 6 Characters count : 18 ألم يك نطفة من مني يمنى

ثُمَّ كَانَ عَلَقَةً فَخَلَقَ فَسَوَّىٰ

তারপর সে হল রক্তপিন্ড, অতঃপর আল্লাহ তাকে সৃষ্টি করলেন ও সুবিন্যস্ত করলেন।

Words count : 5 Characters count : 17 ثم كان علقة فخلق فسوى

فَجَعَلَ مِنْهُ الزَّوْجَيْنِ الذَّكَرَ وَالْأُنثَىٰ

অতঃপর তাথেকে তিনি সৃষ্টি করলেন জুড়ি- পুরুষ ও নারী।

Words count : 5 Characters count : 26 فجعل منه الزوجين الذكر والأنثى

أَلَيْسَ ذَٰلِكَ بِقَادِرٍ عَلَىٰ أَن يُحْيِيَ الْمَوْتَىٰ

এহেন স্রষ্টা কি মৃতকে আবার জীবিত করতে সক্ষম নন?

Words count : 7 Characters count : 27 أليس ذلك بقادر على أن يحيي الموتى